স্টার্কের বোলিং তোপে উড়ে গেল ওয়েস্ট ইন্ডিজ

মিচেল স্টার্কের বোলিং তোপে অস্ট্রেলিয়ার সঙ্গে প্রথম ওয়ানডেতে পাত্তাই পায়নি স্বাগতিক ওয়েস্ট ইন্ডিজ। ২৬.২ ওভারে অলআউট হয়ে ১৩৩ রানের বড় ব্যবধানে হেরেছে উইন্ডিজরা। ব্যাট হাতে একাই লড়াই করেছেন উইন্ডিজ দলপতি কাইরন পোলার্ড।

অ্যারন ফিঞ্চের অনুপস্থিতিতে এদিন ওয়ানডে অধিনায়কত্বের অভিষেক হয় অ্যালেক্স ক্যারির। বার্বাডোসের কেনসিংটন ওভালে টসে জিতে আগে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেন তিনি। অজিদের হয়ে ওয়ানডে অভিষেক হয় জশ ফিলিপ, বেন ম্যাকডরমট ও ওয়েজ অ্যাগারের।

অস্ট্রেলিয়ার ইনিংসের বিজ্ঞাপন ছিল ৫ম উইকেট জুটি। এই জুটিতে ১১৪ রান যোগ করেন অ্যালেক্স ক্যারি ও অ্যাশটন টার্নার। দলীয় সর্বোচ্চ ৬৭ রান করেন অ্যালেক্স ক্যারি, ৪৯ রান আসে অ্যাশটন টার্নারের ব্যাট থেকে। যদিও নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারিয়ে ২৫২ রানের বেশি করতে পারেনি অজিরা।

জবাব দিতে নেমে প্রথম বলেই উইকেট হারায় ওয়েস্ট ইন্ডিজ। এভিন লুইসকে নিজের ক্যাচে পরিণত মিচেল স্টার্ক। নিজের করা দ্বিতীয় ওভারের প্রথম বলে জেসন মোহাম্মদকে ফেরান বোল্ড করে।

মিচেল স্টার্ক ও জশ হ্যাজেলউড মিলে ওয়েস্ট ইন্ডিজকে ৬ উইকেটে ২৭ রানের দলে পরিণত করেন চোখের পলকে।

সেখান থেকে আলঝারি জোসেফ (১৭) ও হেইডেন ওয়ালশ জুনিয়রদের (২০) নিয়ে কেবল ব্যবধানই কমাতে পেরেছেন কাইরন পোলার্ড (৫৬)।

৪৯ ওভারে নেমে আসা ম্যাচে ২৬.২ ওভারেই অলআউট হয় উইন্ডিজরা, ডাকওয়ার্থ লুইস পদ্ধতিতে ১৩৩ রানে জেতে অজিরা।

সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচ মাঠে গড়াবে ২৩ জুলাই, ২৫ জুলাই হবে শেষ ম্যাচ।

সংক্ষিপ্ত স্কোরঃ
অস্ট্রেলিয়া ২৫২/৯ (৪৯), ফিলিপ ৩৯, ম্যাকডরমট ২৮, মার্শ ২০, হেনরিকস ৭, ক্যারি ৬৭, টার্নার ৪৯, ওয়েড ৩, স্টার্ক ৮, জাম্পা ১২*, অ্যাগার ৯, হ্যাজেলউড ১*; আকিল ১০-১-৫০-২, জোসেফ ১০-০-৪০-২, হেইডেন ১০-০-৩৯-৫

ওয়েস্ট ইন্ডিজ ১২৩/১০ (২৬.২), লুইস ০, হেটমেয়ার ১১, জেসন ২, ব্রাভো ২, পুরান ০। পোলার্ড ৫৬, হোল্ডার ০, জোসেফ ১৭, হেইডেন ২০, আকিল ০, কটরেল ৪*; স্টার্ক ৮-১-৪৮-৫, হ্যাজেলউড ৬-১-১১-৩, জাম্পা ৩.২-০-৩৯-১, মার্শ ৩-০-৭-১

ফলাফলঃ অস্ট্রেলিয়া ১৩৩ রানে জয়ী (ডাকওয়ার্থ লুইস পদ্ধতিতে)
ম্যাচসেরাঃ মিচেল স্টার্ক (অস্ট্রেলিয়া)।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *