মেসি নেইমারদের ছেড়ে রোনালদোর ক্লাবে যাচ্ছে পিএসজি কোচ!

সময়টা ভালো যাচ্ছেনা ইংলিশ ক্লাব ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের। তার চাইতেও দোদুল্যমান অবস্থা দলটির কোচের। ঘরের মাঠে প্রবল প্রতিদ্বন্দ্বী লিভারপুলের বিপক্ষে ৫-০ গোলে হেরে যাওয়ার পর থেকেই চাকরি নিয়ে টানাটানি অবস্থা ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড কোচ ওলে গানার সোলশায়ারের।

ফুটবল বিষয়ক ওয়েবসাইটগুলো বলছে, ওলে গানারের স্থলাভিষিক্ত হিসেবে ম্যান ইউনাইটেডের প্রথম পছন্দ পিএসজি কোচ মরিসিও পচেত্তিনো। আর এমনটা হলে মেসি-নেইমারদের ছেড়ে রোনালদোর কোচ হবেন আর্জেন্টাইন পচেত্তিনো।

সোলশায়ারের অধীনে সবশেষ সাত ম্যাচে জয় মাত্র দুটিতে। আর এমন ভরাডুবির পরই চাপ বাড়ছে সোলশায়ারের। আশঙ্কা করা হচ্ছে, হয়ত খুব বেশিদিন ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের ম্যানেজার হিসেবে দেখা যাবে না একসময় ম্যান ইউতেই খেলা এই কোচকে।

সোলশায়ারের খুঁটি যত হালকা হচ্ছে, ঠিক ততই পাল্লা ভারি হচ্ছে পচেত্তিনোর। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যমগুলো এখন এই আলোচনাতেই সরব। বিশেষ করে ডেইলি স্টার, স্কাই স্পোর্টসের বরাতে জানা গেছে যে, ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের পরবর্তী কোচ হিসেবে প্রথম সারিতেই আছেন পিএসজি কোচ।

এদিকে, পিএসজির অবস্থাও ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের মতোই। আর তাই পচেত্তিনোর চাকরি নিয়ে এখনো তেমন জোরালো আওয়াজ না পাওয়া গেলেও যে কোনো সময়ই বাতাস পাল্টাতে পারে বলেই আভাস মিলেছে। কারণ লিগ ওয়ানের প্রথম মৌসুমে বিশ্বসেরা ফুটবলার লিওনেল মেসি, নেইমার এবং কিলিয়ান এমবাপ্পেকে দলে ভিড়িয়েও তেমন সাফল্য পাচ্ছে না প্যারিসের ক্লাবটি।আর তাই দানে দানে তিন দান মিলে গেলেই হয়ে যেতে পারে যে কোনো কিছুই।

এর আগে ইংলিশ ক্লাব টটেনহ্যামের হয়ে কোচিংয়ের অভিজ্ঞতা রয়েছে মরিসিও পচেত্তিনোর। যদিও সে অধ্যায় ভুলে যেতেই চাইবেন এই আর্জেন্টাইন। তার অধীনে একটাও শিরোপা জিততে পারেনি টটেনহ্যাম হটস্পার।

যদিও এই পচেত্তিনোর অধীনেই প্রথমবারের মতো চ্যাম্পিয়ন লিগের ফাইনালে উঠেছিল টটেনহ্যাম। তবে শেষ পর্যন্ত শিরোপার দুঃখ রয়েই গেছে।

এদিকে, ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডকে ৫-০ গোলে উড়িয়ে দেওয়ার পর লিভারপুল কোচ ক্লপ বলেন, ম্যাচটার কথা মানুষ অনেকদিন মনে রাখবে। গত ২৪ অক্টোবর ম্যাচটির পঞ্চম মিনিটে নাবি কেইতা দলকে এগিয়ে নেওয়ার পর ব্যবধান দ্বিগুণ করেন দিয়োগো জোতা। পরে হ্যাটট্রিক উপহার দেন মোহামদ সালাহ।

প্রথম হাফে চার গোল হজম করেই ম্যাচ থেকে ছিটকে যায় ইউনাইটেড। রোনালদো-পগবাদের ঘুরে দাঁড়ানোর তেমন কোনো সুযোগই দেয়নি লিভারপুল। এমন ম্যাচ নিকট ভবিষ্যতে দেখা যাবে না বলে স্কাই স্পোর্টসে দেওয়া সাক্ষাৎকারে মন্তব্য করেন ক্লপ।

ক্লপ বলেন, ‘এটা আসলেই ভালো একটা দিন-বড় একটা দিন। ক্লাবের ইতিহাসে এই জয় ছোট একটা অধ্যায়। লোকে এটা নিয়ে ভবিষ্যতে কথা বলবে; কেননা, এমন ম্যাচ ভবিষ্যতে যদি কখনও হয়ও, অনেক দিনের মধ্যে যে হবে না তা নিশ্চিত।’

এছাড়া তিনি আরও যোগ করেন, ‘ম্যাচটি নিয়ে আমি কী বলতে পারি? এটা কি আমি প্রত্যাশা করেছিলাম? না। এটা পাগলাটে ফল। এটা বিশেষ কিছু, কিন্তু আমরা এ জয় দিশেহারা হয়ে উদযাপন করব না। কেননা, প্রতিপক্ষের প্রতি শ্রদ্ধা আছে আমাদের।’

About Newz Nyc

Check Also

গুরু হেইডেনকে টপকে নতুন বিশ্ব রেকর্ড গড়লেন বাবর আজম

যেন হাওয়ায় ভাসছে পাকিস্তান দল। এবারের বিশ্বকাপে দুরন্তভাবে খেলে চলছে পাকস্তানিরা। আর প্রথমবারের মতো টি-টোয়েন্টি …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *